না ফেরার দেশে চলে গেছেন নায়ক নিরবের সবচেয়ে আপনজন

না ফেরার দেশে চলে গেছেন নায়ক নিরব হোসেনের মা নুরজান আলম। বৃহস্পতিবার (২৪ ডিসেম্বর) সকাল ৭টা ৪৫ মিনিটে রাজধানীর একটি হাসপাতালে মৃ’ত্যুবরণ করেন তিনি। মৃ’ত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৬০ বছর। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন পরিচালক সাইফ চন্দন।জানা গেছে, কিছুদিন ধরে অসুস্থ ছিলেন নিরবের মা।

ডায়াবেটিস, কিডনি এবং বার্ধক্যজনিত অসুখে ভুগছিলেন তিনি। ৬ বছর আগে বাইপাস সার্জারি এবং গত বছর রিং পরানো হয়েছিল তাকে। কয়েক মাস ধরে সপ্তাহে তিন দিন করে ডায়ালাইসিস চলছিল নুরজান আলমের।ম’রদেহ নিয়ে সকালে নিরবের গ্রামের বাড়ি রাজবাড়ীতে রওনা দেওয়া হয়েছে। সেখানে জানাজা শেষে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হবে তাকে। নিরবের মায়ের মৃ’ত্যুতে শোক প্রকাশ করেছেন ফিল্মপাড়ার অনেকে। সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে তার আ’ত্মার শান্তি কামনা করে স্ট্যাটাসও দিয়েছেন নিরবের সহকর্মীরা।

আরও পড়ুনঃশেন ওয়ার্নের পর দ্বিতীয় অস্ট্রেলিয়ান স্পিনার হিসেবে টেস্টে ৪০০ উইকেট ও ১০০ টেস্ট ম্যাচ খেলার মাইলফলকের সামনে দাঁড়িয়ে নাথান লায়ন। ভারতের বিপক্ষেই সে কীর্তি গড়ার অপেক্ষায় আছেন ৩৩ বছর বয়সী এই ক্রিকেটার। দ্বিতীয় টেস্টে ভারত আরও শক্তিশালী হয়ে ফিরবে।

অ্যাডিলেডের মতো বক্সিং ডে টেস্টে এত সহজে প্রতিপক্ষকে কম রানে আটকে রাখা যাবে না বলেও জানান তিনি। সামনেই খ্রিষ্টান ধর্মের সবচেয়ে বড় উৎসব বড় দিন। চলছে উৎসবে মেতে ওঠার প্রস্তুতি। চমৎকার এ ক্ষণে বক্সিং ডে টেস্টে মেলবোর্নে ভারতের বিপক্ষে লড়বে অস্ট্রেলিয়া।

লক্ষ্য সিরিজে এগিয়ে যাওয়া। তবে, টেস্টের আগে গণমাধ্যম থেকে শুরু করে সব খানে একটাই আলোচনা। মেলবোর্নে কি হবে অ্যাডিলেডের পুনরাবৃত্তি? নিজেদের টেস্ট ইতিহাসে সবচেয়ে কম রানে ভারতকে বেঁধে ফেলেছিল অজিরা। তবে, মেলবোর্নে কাজটা এতটা সহজ হবে না বলে মনে করেন অফ স্পিনার নাথান লায়ন।

পিতৃত্বকালীন ছুটির কারণে এ টেস্টে নেই বিরাট কোহলি। তার পরিবর্তে গুরুদায়িত্ব পালন করবেন চেতশ্বর পূজারা। তবে, টেস্টে লায়নের সামনে খুব একটা সুবিধা করে উঠতে পারেন না পূজারা। সাদা পোশাকে এর আগে দশবার উইকেট নিয়েছেন লায়ন। কোহলি, শামি না থাকলেও, মেলবোর্নে অজিদের কঠিন প্রতিদ্বন্দ্বিতায় ফেলে দিতে চাইবে ভারত।সে জন্য প্রস্তুত আছে অস্ট্রেলিয়া। নাথান লায়ন বলেন, ‘অ্যাডিলেডে ভারতের ভরাডুবি হলেও, মেলবোর্নে ঘুরে দাঁড়াতে চাইবে ওরা। রাহানের দলকে কাবু করতে সব প্রস্তুতি নিয়ে রেখেছি আমরা। তবে আমার মনে হয়, এ টেস্টে ওরা আমাদের হারাতে সব রকম চেষ্টা চালিয়ে যাবে। যত চেষ্টাই করুক না কেন?

আমরা তৈরি আছি ওদের চ্যালেঞ্জ নিতে। এ টেস্টে খেলবেন না ওয়ার্নার। তবে, সে শূন্যতা পূরণে মুখিয়ে আছেন অন্যরা।’ ক্যারিয়ারের চমৎকার এক মাইলফলকের সামনে দাঁড়িয়ে লায়ন। শেন ওয়ার্নের পর দ্বিতীয় স্পিনার হিসেবে সাদা পোশাকে ৪০০ উইকেট ও ১০০ টেস্ট খেলার রেকর্ডের সামনে দাঁড়িয়ে ৩৩ বছর বয়সী এই ক্রিকেটার।ভারতের বিপক্ষেই সে রেকর্ড গড়তে চান তিনি। নাথান লায়ন আরও বলেন, ‘রেকর্ড সব সময়ই আনন্দের। ওয়ার্ন আমার আদর্শ। তার মতো আমিও ৪০০ উইকেটের অংশীদার হতে পারব। এটা ভাবতেই ভালো লাগছে। চেষ্টা করব। জানি না মাঠে কতটুকু বাস্তবায়ন হবে।’ ৯৭ টেস্টে ৩৯১টি উইকেট নিয়েছেন লায়ন।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*