দেশে ঋণখেলাপি ৩ লাখ ৩৫ হাজার

অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তাফা কামাল জানিয়েছেন, গত বছরের অক্টোবর পর্যন্ত দেশের ব্যাংক ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানের খেলাপি ঋণগ্রহীতা ৩ লাখ ৩৪ হাজার ৯৮২ জন।

সোমবার (২৫ জানুয়ারি) জাতীয় সংসদে এক প্রশ্নের জবাবে তিনি এ তথ্য জানান।

এর আগে স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে সংসদ অধিবেশনের শুরুতে প্রশ্নোত্তর টেবিলে উত্থাপিত হয়। খেলাপি ঋণ আ'দায়ে নেয়া বেশ কিছু পদ'ক্ষেপের কথাও জাতীয় সংসদে তুলে ধরেন অর্থমন্ত্রী।

জাতীয় পার্টির শামীম হায়দার পাটোয়ারীর প্রশ্নের জবাবে অর্থমন্ত্রী বলেন, ‘চলতি ২০২০-২১ অর্থবছরে রাজস্ব আ'দায়ের লক্ষ্যমাত্রা ৩ লাখ ৩০ হাজার কোটি টাকা। ডিসেম্বর ২০২০ পর্যন্ত আ'দায় হয়েছে ১ লাখ ৮ হাজার ৪৭১ কোটি ৭১ লাখ টাকা। লক্ষ্যমাত্রার তুলনায় অর্জন ৩২.৮৭ শতাংশ।’

এ কে এম রহমতুল্লাহর প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী বলেন, ‘দেশ থেকে অবমূল্যায়ন (Under invoicing) বা অতিমূল্যায়নের (Over invoicing) মাধ্যমে অর্থ পাচারের কিছু অ'ভিযোগ পাওয়া গেছে। সংশ্লিষ্ট আইন প্রয়োগকারী সংস্থা এটি খতিয়ে দেখছে। যেসব ক্ষেত্রে অ'ভিযোগের সত্যতা পাওয়া গেছে, সেসব ক্ষেত্রে আইনানুগ ব্যবস্থা চলমান রয়েছে।’

অর্থ পাচার বন্ধে সরকারের নানা পদ'ক্ষেপের কথা তুলে ধরে তিনি বলেন, ‘এসব পদ'ক্ষেপের ফলে বৈদেশিক মুদ্রা বা অর্থ পাচার অনেকাংশে কমে যাব'ে।’

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*