ওবায়দুল কাদের ভাই কাদের মির্জাকে আ’লীগ থেকে বহিষ্কার!

সাম্প্রতিক সময়ে নানা কারণে রাজনৈতিক অ'ঙ্গন, গণমাধ্যম ও সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে বহুল আলোচিত ও সমালোচিত নোয়াখালীর বসুরহাট পৌরসভার মেয়র আবদুল কাদের মির্জাকে দল থেকে চূড়ান্ত বহিষ্কারের জন্য কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের কাছে সুপারিশ এবং দলীয় সব কার্যক্রম থেকে অব্যা'হতি দিয়েছে নোয়াখালী জে'লা আওয়ামী লীগ।

আবদুল কাদের মির্জা কোম্পানীগঞ্জ উপজে'লা আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য পদে রয়েছেন। তিনি বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক সড়ক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদেরের ছোটভাই।

শনিবার সন্ধ্যার পর নোয়াখালী জে'লা আওয়ামী লীগের দলীয় প্যাডে জে'লা আওয়ামী লীগ সভাপতি অধ্যক্ষ এএইচএম খায়রুল আনম চৌধুরী সেলিম ও সাধারণ সম্পাদক মোহা'ম্ম'দ একরামুল করিম চৌধুরী এমপির যৌ'থভাবে স্বাক্ষরিত প্রেস বিজ্ঞ'প্ত ির মাধ্যমে এ সংবাদ নিশ্চিত হওয়া গেছে।

বিজ্ঞ'প্ত িতে উল্লেখ করা হয়- গত কয়েক স'প্ত াহ ধরে আবদুল কাদের মির্জা দলীয় নেতাকর্মীদের ওপর স'ন্ত্রাসী লেলিয়ে দিয়ে গু'রুতরভাবে আ'হত করায় এবং বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ কেন্দ্রীয় কমিটির নেতা ও নোয়াখালী জে'লা আওয়ামী লীগের নেতাদের সম্পর্কে মিথ্যা, অ'শালীন বক্তব্য ও আপ'ত্তিকর উক্তি, বিভিন্ন সভা-সমাবেশে এবং সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ফেসবুক লাইভে এসে সংগঠনবিরোধী অশোভনীয় মন্তব্য এবং নেতাকর্মীদের হু’মকি প্রদান করার অ'ভিযোগে তাকে সংগঠনের সব কার্যক্রম থেকে অব্যা'হতি প্রদান করা হলো।

সংগঠনবিরোধী উল্লেখিত কারণ ও দলীয় গঠনতন্ত্র পরিপন্থি কাজে জড়িত থাকার অ'ভিযোগে আবদুল কাদের মির্জাকে দলের প্রাথমিক সদস্যপদ থেকে চূড়ান্তভাবে বহিষ্কার করার জন্য বাংলাদেশ আওয়ামী লীগ সভানেত্রী শেখ হাসিনা ও কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী সংসদ সমীপে সুপারিশ করা হয়েছে বলে প্রেস বিজ্ঞ'প্ত িতে উল্লেখ করা হয়েছে।

নোয়াখালী জে'লা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক একরামুল করিম চৌধুরী প্রেস বিজ্ঞ'প্ত ির বি'ষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, নোয়াখালী জে'লা আওয়ামী লীগ আবদুল কাদের মির্জার সংগঠনবিরোধী কার্যকলাপের অ'ভিযোগের প্রমাণ পেয়ে তাকে চূড়ান্তভাবে দল থেকে বহিষ্কারের সুপারিশ করে কেন্দ্রে পাঠানো হয়েছে। একই স'ঙ্গে দলীয় সব কার্যক্রম থেকে তাকে অব্যা'হতি দেয়া হয়েছে। সূত্র: যুগান্তর

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*