লেবাননে হা'মলার হু’মকি ইসরাইলের

লেবননের ইসলামী প্রতিরোধ আন্দোলন হিজবুল্লাহ যদি ইসরাইলে হা'মলা চালায় তাহলে লেবাননের জনগণকে ‘চড়া মূল্য’ দিতে হবে বলে হুঁশিয়ারি দিয়েছেন ইসরাইলের প্রতিরক্ষা মন্ত্রী বেনি গান্টেজ।

গান্টেজের বরাত দিয়ে টাইমস অব ইসরাইল জানিয়েছে, যদি উত্তরে কোনো হা'মলার ঘটনা ঘটে, তাহলে দেশটির বেসামর'িক নাগরিকদের মাঝে ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা অ'স্ত্রের জন্য লেবাননের জনগণকে সবচেয়ে চড়া মূল্য দিতে হবে।

দক্ষিণ লেবাননে সেনা মোতায়েন করতে গিয়ে ১৯৯৭ সালে ইসরাইলের দুটি পরিবহন হেলিকপ্টারের সং'ঘর্ষ হয়েছিল। তাতে ৭৩ জন সেনা সদস্য নি'হত হয়েছিল। নি'হত সেনাদের স্মর'ণ অনুষ্ঠানে এই হুঁশিয়ারি দেন গান্টেজ।

তিনি বলেন, আমর'া বারবার বলেছি যে, আমর'া হিজবুল্লাহ ও ইরানিদের কখনো লেবাননকে স'ন্ত্রাসী রাষ্ট্র বানাতে দেবো না। এখন ইসরাইল প্রতিরক্ষা বাহিনী সীমা'ন্ত এলাকায় তাদের কার্যক্রম পরিচালনা করছে এবং তা চালিয়ে যাব'ে। সূত্র: মিডল ইস্ট মনিটর।

আন্তর্জাতিক গণমাধ্য জানিয়েছে, লেবাননের হিজবুল্লাহ সিরিয়ায় তাদের এক সেনা হ'ত্যার প্রতিশোধ নেয়ার হু’মকি দেয়ার পর অস্বস্তিতে রয়েছে ইসরাইল।

গত বছরের আগস্টে সিরিয়ায় ইসরাইলি হা'মলায় লেবাননের ইসলামী প্রতিরোধ আন্দোলন হিজবুল্লাহর এক সেনা নি'হত হন। হিজবুল্লাহ এ ধরণের যেকোনো হ'ত্যাকাণ্ডের প্রতিশোধ নিয়ে থাকে। এ কারণে ইসরাইল এরপর বার্তা দিয়ে জানিয়েছে, তারা ভুলে এ হ'ত্যাকাণ্ড ঘটিয়েছে। কিন্তু এরপরও হিজবুল্লাহ প্রতিশোধ নেবে বলে আশঙ্কা করছে তেল আবিব।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*